Hotline:
+88 09678 66 11 22

Cocopeat Organic Fertilizer(কোকোপিট)

৳ 250.00 5 kg

বাসা বাড়ীর ছাদে বাগান করার জন্য এই কোকো পিটের ব্যবহার উন্নত বিশ্বে তেমন বেশী প্রচার করতে হয় না কিন্তু আমাদের দেশে এই কোকো পিটের ব্যবহারে এখনো মানুষের সচেতনা তেমন তৈরি হয়নি বিধায় মানুষ এখনো ছাদ বাগান করার জন্য এই কোকো পিট ব্যবহারের অভ্যাস গড়ে তুলতে পারে নাই। সৌখিন অথবা বাণিজ্যিক ছাদ বাগানিদের জন্য কোকো পিট এক নতুন সম্ভাবনার এক অভাবনীয় নতুন দিগন্ত। শুকনো নারকেলের আঁশ/ছোব্রা বা কয়ার এর গুঁড়া হলো কোকো পিটের মূল উপাদান। ছাদ বাগান করার জন্য এটি একটি খুবই ওজন কম এবং বেশী পরিমাণ জলীয় অংশ ধারণ ক্ষমতা সম্পন্ন ১০০% জৈব/অর্গানিক উপাদান। কোকো পিট ব্যবহার করলে বাগানের জন্য আলাদা কোন মাটি ব্যবহারের প্রয়োজন হয়না।

Out of stock

Description

কেন কোকো পিট ব্যবহার করবেন?
১. কোকো পিটে আছে অকল্পনীয় পানি ধারন ক্ষমতা। গাছের জন্য ঠিক যতটুকু পানি দরকার ঠিক ততটুকু পানি এই কোকো পিট ধারন করে রাখে ফলে গাছের শিখড় বা মুলে পঁচন ধরে না।
২. কোকো পিট দিয়ে গাছ লাগালে ক্ষতিকারক পোকা মাকড়, ক্ষতিকারক ছত্রাক ও ব্যাকটেরিয়া আক্রমণ করতে পারে না।
৩. কোকো পিটে দ্রুত পানি ও বাতাস আসা যাওয়া করতে পারে ফলে গাছের শিকড় দ্রুত বাড়ে। গাছের শিকড় বাড়ার কারনে গাছও দ্রুত বাড়ে এবং সাস্থ্যবান হয়।
৪. কোকো পিটে রাসায়নিক সার মিশানো ছাড়াও চাষ করা যায়। শুধু মাত্র ভার্মি কম্পোষ্ট/জৈব সার মিশিয়ে চাষ করা যায় ফলে রাসায়নিক মুক্ত নিরাপদ সবজি,ফল,ফুল, অর্কিড ও অন্যান্য গাছ উৎপাদন সম্ভব।
৫. কোকো পিট মাটির তুলনায় পরিষ্কার ও পরিছন্ন ফলে যেখানে গাছ রাখবেন সেই যায়গা গুলো যেমন আপনার ঘর,বারান্দা ও ছাদ নোংরা হবে না সর্বসময় পরিষ্কার ও পরিছন্ন থাকবে।
৬. কোকো পিটে বেড়ে উঠা গাছের ফল ও ফুল বড় ও পুষ্টিবান হয় এবং যার কারনে হাইড্রপোনিক্স বাগান মালিকেরা মাটি ব্যাবহার না করে কোকো পিট ব্যাবহার করে।
৭. কোকো পিট হালকা এবং ঝুরঝুরে হবার কারনে এর ভিতরে খুব সহজে মাটিতে গাছের জন্য খাদ্য তৈরিতে অক্সিজেন সরবরাহ করতে পারে।
৮. কোকো পিটে প্রাকৃতিক মিনারেল থাকে যা উদ্ভিদের খাদ্য তৈরি এবং উপকারী অণুজীব সক্রিয় করার জন্য বিশেষ ভূমিকা রাখে।
৯. প্রাকৃতিকভাবেই কোকো পিটের পি এইচ এর মাত্রা থাকে ৪.২ থেকে ৬.২ এবং ক্ষারত্ব সহনশীল পর্যায় থাকে বলে উন্নত বিশ্বে এই কোকো পিটের ব্যবহার সব চাইতে বেশী।
১০. কোক পিটে আছে উন্নত পানি নিষ্কাশন পক্রিয়া ফলে কোকো পিটে গাছের মৃত্যুহার খুব কম।
১১. বীজতলা ও বীজ জার্মিনেশন এর এক অসাধারন মাধ্যম এই কোকো পিট।
১২. মাটিবিহীন বানিজ্যিক চাষাবাদ এর বিকল্প মাধ্যম।
১৩. কোকো পিট মাটির তুলনায় ওজনে অনেক গুন হাল্কা ফলে গাছের টব বা পাত্র সহজে বহন করা যায়। ফলে ছাদের উপর অতিরিক্ত চাপ পরেনা।
—————————————————————————————————
কোকো পিট ব্যবহারের নিয়মাবলীঃ
প্রতি কেজি কোকো পিটের সাথে প্রয়োজন অনুযায়ী পানি মেশাতে হবে যাতে বেশী ভেজা ভেজা না হয় আবার খুব শুকনোও না হয়। পানি অল্প অল্প করে কিছুক্ষণ পর পর কোকো পিটের উপর ঢালতে হবে। খেয়াল রাখতে হবে পানি যাতে বেশি হয়ে থেক থেকে না হয়ে যায় আর যদি হয়েও যায় তাহলে নেট জাতিয় কাপড়ে রেখে ঝুলিয়ে অতিরিক্ত পানি ঝরিয়ে নিতে হবে। সম্পুর্ন ঝুর ঝুরে হয়ে যাওয়ার পর আপনার নিজের অভিজ্ঞতা অনুযায়ী ব্যাবহার করুন।

১। টবে বা বেডে কোকো পিট দিয়ে গাছ লাগানোর নিয়মঃ
প্রথমে একটি গামলা/ প্লাস্টিক বল এর মধ্যে ঝুর ঝুরে হয়ে যাওয়া ভেজা কোকো পিট নিতে হবে। এর সাথে কোকো ভালো মানের ভার্মি কম্পোস্ট/ জৈব সার ভালো করে মিশিয়ে নিন। মেশানো হয়ে গেলে মিশ্রণটি দিয়ে টব অথবা বেডে গাছ বা গাছের চারা রোপন করুন। গাছের চারা রোপন করার পর গোড়ার পটিং/মিশ্রন হাত দিয়ে চেপে হালকা টাইট/ঠেসে দিন। নিয়মিত পানি দিবেন। নিন্মের রেসিও অনুযায়ি মিশ্রন তৈরি করতে পারেন।
=>কোকো পিট ৫০% + ২৫% ভার্মি কম্পোস্ট/জৈব সার + ২৫% পঁচা গোবর (অপশোনাল)।

২। বড় ড্রামে কোকো পিট দিয়ে গাছ লাগানোর নিয়মঃ
প্রথমে একটি গামলা/ প্লাস্টিক বল এর মধ্যে ঝুর ঝুরে হয়ে যাওয়া ভেজা কোকো পিট এর সাথে জৈব সার/ভালো মানের ভার্মি কম্পোষ্ট ভাল করে মিশিয়ে নিন। মেশানো হয়ে গেলে মিশ্রণটি দিয়ে আপনার পছন্দের ড্রামে গাছ বা গাছের চারা রোপন করে দিন। গাছের চারা রোপন করার পর গোড়ার পটিং/মিশ্রন হাত দিয়ে চেপে হালকা টাইট/ঠেসে দিন। নিয়মিত পানি দিবেন। কোকো পিট দিয়ে ড্রামে গাছ লাগাতে হলে অবশ্যই গাছের মধ্যে শক্ত সাপোর্ট দিতে হবে যাতে ঝড়ো বাতাসে হেলে না যায়। নিন্মের রেসিও অনুযায়ি মিশ্রন তৈরি করতে পারেন।
=>কোকো পিট ৩০% + ভার্মি কম্পোস্ট/জৈব সার ২০% + পঁচা গোবর ২০%

৩। বীজ থেকে চারা তৈরীর জন্য কোকো পিট ব্যাবহার এর নিয়মঃ
বীজ থেকে চারা তৈরীর জন্য ঝুর ঝুরে হয়ে যাওয়া কোকো ডাস্ট গুলোকে চাল ধোয়ার মত ২-৩ বার ভাল করে ধুয়ে নিতে হবে। ধোয়া শেষ হয়ে গেলে ধান শুকানোর মত করে করা রোদে শুকিয়ে নিতে হবে। সম্পুর্নভাবে শুকিয়ে যাওয়া কোকো ডাস্ট গুলো রেসিও অনুযায়ি বীজের ট্রে অথবা কালো রং এর প্লাস্টিকের ১২০-১৫০ মিঃলিঃ গ্লাস ভরাট করুন। বীজের ট্রে অথবা প্লাস্টিকের গ্লাস কোকো ডাস্ট দিয়ে ভরাট করে নেওয়ার পর এগুলোর উপর ঝর্নার মত পানি ছিটিয়ে ভিজিয়ে নিন এরপর এক এক করে বীজ গুলে বুনে দিন। খেয়াল রাখবেন কোকো পিটের বীজতলায় অতিরিক্ত পানি থাকলে বীজ পঁচে যাওয়ার সম্ভাবনা আছে। বীজ বুনার আগে যেনে নিন আপনি যে বীজ বুনবেন সেগুলো আগে থেকে পানিতে ভিজিয়ে রাখতে হবে কি না? বীজ বুনা শেষ হেয় গেলে বীজের ট্রে অথবা প্লাস্টিকের গ্লাস গুলো ঘোলাটে/কালো পলিথিন দিয়ে ঢেকে রাখুন যাতে বাতাস স্বাভাবিক ভাবে আসা যাওয়া করতে পারে এবং রোদ সরাসরি না পরে। বীজ গজানোর পর উপযুক্ত সময়ে টব/ড্রাম/বেড এ রোপন করে দিন।
=> কোকো পিট ৮০% + ভার্মি কম্পোস্ট/জৈব সার ২০%।

Reviews

There are no reviews yet.

Be the first to review “Cocopeat Organic Fertilizer(কোকোপিট)”

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Subscribe our Newsletter Get news about latest products & Offer


Copyright © 2019 Organic Online BD All rights reserved

FORGOT PASSWORD ?
Lost your password? Please enter your username or email address. You will receive a link to create a new password via email.
We do not share your personal details with anyone.
0